April 17, 2021

News World Bangla

Everyday news in bangla

৫০ বছর আগে চাঁদে মানুষ যাওয়ার পর এত বছরে আর কাউকে/মানুষকে চাঁদে পাঠানো হয়নি কেন?

1 min read

৫০ বছর আগে চাঁদে মানুষ যাওয়ার পর এত বছরে আর কাউকে/মানুষকে চাঁদে পাঠানো হয়নি কেন?দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর থেকেই পৃথিবীর অধিকাংশ দেশ দু’টি শিবিরে ভাগ হয়ে যায় — কমিউনিষ্ট সোভিয়েত রাশিয়া এবং ধনতান্ত্রিক মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। আমরা ঠান্ডা যুদ্ধের কথা সবাই মোটামুটি জানি। আমি তার আর পুনরাবৃত্তি করছি না। এই ঠান্ডা যুদ্ধ ‘৬০ এর দশক থেকে শুরু করে ‘৮০ এর দশক অবধি পুরোদমে চলেছিল।

এই ঠান্ডা যুদ্ধের একটা চমকপ্রদ অংশ ছিল মহাকাশ প্রতিযোগিতা বা Space race। কে আগে যাবে, কে কাকে টক্কর দেবে সেই নিয়ে দুই দেশের মধ্যে প্রবল প্রতিযোগিতা।

এবং বলে রাখা ভালো, আমেরিকা চাঁদে যাওয়ার আগে পর্যন্ত কিন্তু সোভিয়েত রাশিয়া-ই এই মহাকাশ প্রতিযোগিতায় এগিয়ে ছিল।

এক, তারাই মহাকাশে প্রথম কৃত্রিম উপগ্রহ স্পুৎনিক পাঠায়, সেটা ১৯৫৭ সাল। এবং আমেরিকার আগেই।

দুই, তারাই মহাকাশে প্রথম প্রাণী পাঠায় — লাইকা নামের একটা কুকুর।

৫০ বছর আগে চাঁদে মানুষ যাওয়ার পর এত বছরে আর কাউকে/মানুষকে চাঁদে পাঠানো হয়নি কেন?তিন, তারাই প্রথম মহাকাশে মানুষ পাঠায়, ভদ্রলোকের নাম ইউরি গ্যাগারিন। এবং ১ ঘন্টা ৪৮ মিনিট মহাকাশে তিনি কাটিয়ে আসেন।

আন্তর্জাতিক মহলে আমেরিকার মুখ পুড়ছিলো এইসব ঘটনায়। ঘরের লোকের প্রশ্নের মুখেও পড়তে হচ্ছিল।

তখন মরিয়া হয়ে আমেরিকা ঘোষণা করে যে আমেরিকা চাঁদে মানুষ পাঠাবে। আমেরিকার জনমোহনী রাষ্ট্রপতি কেনেডি স্বয়ং একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষ্ঠানে ৪০,০০০ লোকের সামনে এই ঘোষণা করেন।

২২০০ কোটি মার্কিন ডলার খরচ করে অনেক বিরোধিতার সম্মুখীন হয়েও শেষ অবধি অ্যাপোলো-১১ মিশনের মাধ্যমে মানুষ চাঁদে যায়। সেই কাহিনী এই উত্তরের উপজীব্য নয়।

তার ফলে কী হলো?

সোভিয়েত রাশিয়াকে মুখের উপর জবাব দেওয়া গেল। দেশের মানুষেরও উন্মাদনা চরমে উঠলো। অভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে এই ঘটনা বেশ জনপ্রিয় হলো।

প্রথম চাঁদে মানুষ পাঠিয়ে আমেরিকা সারা দুনিয়াকে তাক লাগিয়ে দিল। মনে রাখতে হবে, তখন চাঁদে কিন্তু কোনো মনুষ্যবিহীন যানও পাঠানো হয়নি।

১৯৮০ এর দশকের শেষ দিক থেকে সোভিয়েত রাশিয়া দুর্বল হতে থাকে। ১৯৯১ সালে সোভিয়েত রাশিয়ার পতন ঘটে।

বিশ্বের মঞ্চে একমাত্র মহাশক্তি হিসেবে আমেরিকার উদয় হয়।

এই মহাশক্তিকে চ্যালেঞ্জ করার মতো কোনো শক্তিই পৃথিবীতে থাকলো না।

যদি প্রতিযোগীই না থাকে, তাহলে প্রতিযোগীতা কীসের?

তাই আমেরিকার চন্দ্র অভিযানের ইচ্ছা ধীরে ধীরে কমে যেতে থাকে।

আরও যে কারণ বেশি করে দায়ী আমেরিকার চাঁদে না যাওয়ার জন্য তা হল— দেশের মানুষের মধ্যে উন্মাদনা কমে যাওয়া।

একটা মজার তথ্য দিই।

আমেরিকা শেষবার চাঁদে গেছিল ১৯৭২ সালে। সেবার ইউজিন কারনান যখন চাঁদের মাটিতে হাঁটছেন, তার সরাসরী সম্প্রচার করা হয়েছিল মার্কিন টেলিভিশনে। সেই চাঁদে হাঁটার দৃশ্য আমেরিকায় যতজন টেলিভিশনে দেখেছিলেন, তার থেকে বেশি সংখ্যায় মানুষ দেখেছিলেন একটি মার্কিন সিরিয়াল- It’s All In The Family!

অর্থাৎ চাঁদে মানুষ হাঁটা দেখার থেকে আমেরিকার মানুষের কাছে বেশি গুরুত্বপূর্ণ ছিল- টেলিভিশনে সিরিয়াল দেখা!

অর্থাৎ একটা ঘটনা বারবার ঘটলে মানুষের তাতে রুচি চলে যায়। তা চরম গুরুত্বপূর্ণ হলেও। এর জন্য আপামর জনসাধারণের বৈজ্ঞানিক শিক্ষার অভাবও দায়ী।

তাছাড়াও চন্দ্র অভিযান কোনোদিনই অর্থনৈতিক ভাবে লাভজনক ছিল না।

সেজন্যও চাঁদে আর মানুষ পাঠানো হয়নি।

আরো দেখুন:- ৭ হাজার টাকার মধ্যেই আসল হিরে বসানো ড্রেস, কিনতে হলে কী করবেন? জেনে নিন চট করে!

আশার কথা হল, আমরা এখন যখন মঙ্গলে যাওয়ার চেষ্টায় আছি তখন পিছন ফিরে তাকিয়ে আমরা চাঁদে যাওয়ার গুরুত্ব আবার উপলব্ধি করছি। আবার পৃথিবীর বাইরে থেকে খনিজ আহরণের পরিকল্পনাও তাতে ইন্ধন যোগাচ্ছে।

তাই নাসা আর্টেমিস নামের প্রকল্পের ঘোষণা করেছে, যার মাধ্যমে কয়েকবছরের মধ্যেই চাঁদে মানুষ পাঠানো হবে।

ইসরোর চন্দ্রযান-২ এর সাফল্যে উদবুদ্ধ হয়ে নাসা যখন ইসরোকে শুভেচ্ছা জানায়, তখন তারা তাদের প্রকল্পের কথা মনে করিয়ে দিতে ভোলেনি—

তাই আমরা আর কয়েক বছরের মধ্যেই চাঁদে যাচ্ছি। এটা মোটামুটি নিশ্চিত।

13 thoughts on “৫০ বছর আগে চাঁদে মানুষ যাওয়ার পর এত বছরে আর কাউকে/মানুষকে চাঁদে পাঠানো হয়নি কেন?

  1. Way cool! Some extremely valid points! I appreciate you penning this article and also the rest of the site is extremely good. Starla Raimund Gilly

  2. Unquestionably believe that which you said. Your favorite justification seemed to be on the internet the simplest thing to be aware of. I say to you, I definitely get annoyed while people think about worries that they just do not know about. You managed to hit the nail upon the top and defined out the whole thing without having side-effects , people could take a signal. Will probably be back to get more. Thanks Keslie Robbert Weslee

  3. If some one needs to be updated with latest technologies after that he must be pay a visit this website and be up to date daily. Dacia Clemente Marva

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Copyright newsworldbangla.com © All rights reserved. | Newsphere by AF themes.
//shoubsee.net/4/3616981