December 4, 2020

News World Bangla

Everyday news in bangla

খুলছে স্কুল, নির্দেশিকা জারি কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের, বিস্তারিত জেনে নিন|

1 min read

খুলছে স্কুল, নির্দেশিকা জারি কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের, বিস্তারিত জেনে নিন|মার্চ মাস থেকে দীর্ঘ ৭ মাস বন্ধ থাকার পর এবার আনলক ৫-এর হাত ধরে খুলতে চলেছে স্কুল, কলেজ সহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ১৫ই অক্টোবরের পর থেকেই ধাপে ধাপে খুলতে চলেছে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

খুলছে স্কুল, নির্দেশিকা জারি কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের, বিস্তারিত জেনে নিন|তবে, স্কুল কলেজ খোলার ক্ষেত্রে নিজস্ব সিদ্ধান্ত নিতে পারবে প্রতিটি রাজ্য। ইতিমধ্যেই, যেসব রাজ্য স্কুল খুলতে ইচ্ছুক, তাদের জন্য একটি নির্দেশিকা জারি করেছে কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রক।

কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের নির্দেশিকা অনুযায়ী,

১. প্রত্যেকটি স্কুল কলেজ খোলার আগে তা সম্পূর্ণভাবে জীবাণুমুক্ত করতে হবে।

২. স্কুল কলেজের ক্লাসরুম, আসবাবপত্র থেকে শুরু করে পরিষ্কার করে জীবাণুমুক্ত করতে হবে স্কুল ক্যাম্পাসের প্রতিটি কোণা, ক্যান্টিন এবং জলের ট্যাঙ্কও।

৩. প্রতিটি স্কুলে একটি করে টাস্কফোর্স গঠন করতে হবে। স্কুলের এমারজেন্সি কেয়ারের দায়িত্বে থাকবে এই টাস্কফোর্স।

৪. পড়ুয়াদের স্কুলে আসা যাওয়ার ক্ষেত্রে যে বাস বা পুলকারগুলি দায়িত্বে থাকবে তাদেরও জীবাণুমুক্ত রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের গাইডলাইনে।

৫. এছাড়া স্কুল খোলার পর করোনা আবহের মধ্যে মিড ডে মিল তৈরি ও বিতরণের ক্ষেত্রেও অতিরিক্ত সাবধানতা অবলম্বন করার কথা বলা হয়েছে ওই গাইডলাইনে। পাশাপাশি, মিড ডে মিলে ছাত্র-ছাত্রীদের গরম খাবার দেওয়ার কথাও বলা হয়েছে।

৬. এছাড়া, স্কুল কলেজ খোলার পর ক্লাস শুরু হলে পড়ুয়া থেকে শুরু করে শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদেরও সোশ্যাল ডিসট্যান্স মেনে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে । স্কুল পড়ুয়া ও শিক্ষক সবার জন্যই অনিবার্য মাস্ক ব্যবহার।

স্কুল কলেজ খোলার বিষয় নির্দেশিকা জারির পাশাপাশি জানানো হয়েছে যে, পড়ুয়ারা স্কুল বা কলেজে এসে সশরীরে ক্লাস করবেন কিনা সেই বিষয়ে অনুমতি আবশ্যক অভিভাবকদের। অভিভাবকদের লিখিত অনুমতি ছাড়া কোনও পড়ুয়া স্কুল বা কলেজে এসে ক্লাস করতে পারবে না বলেও কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের গাইডলাইনে জানানো হয়েছে।

পাশাপাশি গাইডলাইনে আরও জানানো হয়েছে যে, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার পরও যদি কোনও পড়ুয়া ক্লাসে সশরীরে উপস্থিত হওয়ার বদলে অনলাইনে ক্লাস করতে চায় তাহলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তাকে সেই অনুমতি দিতে বাধ্য থাকবে । কোনওভাবেই ক্লাসে উপস্থিত হওয়া নিয়ে পড়ুয়াদের জোর করতে পারবে না শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বলেও গাইডলাইনে জানানো হয়েছে।

আরো দেখুন:- সীমিত পদে প্যারা মেডিক্যাল কর্মী নিয়োগ,কীভাবে কখন চাকরির আবেদন করবেন জেনে নিন বিস্তারিত|

তবে, স্কুল কলেজ সহ সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলায় ছাড় দেওয়া হলেও অনলাইন বা ডিসট্যান্স লার্নিংকেই প্রাথমিকভাবে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে গাইডলাইনে। এছাড়াও, গাইডলাইন অনুযায়ী, শিক্ষাবর্ষের হিসেব বদলাচ্ছে। বদলাবে পরীক্ষার নির্ঘণ্টও। আর তাই, ছাত্রদের সকলকে নতুন বছরের টেক্সট বই দিতে হবে।

পাশাপাশি, ছাত্র-ছাত্রীদের চেকআপের জন্য হেলথ ক্যাম্প আয়োজিত করতে হবে স্কুলেই। ছাত্রছাত্রী ও তাদের পরিবারের সদস্যদের স্বাস্থ্যের বিবরণও থাকতে হবে স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে বলেও কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রকের গাইডলাইনে বলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Copyright © All rights reserved. | Newsphere by AF themes.
//luvaihoo.com/afu.php?zoneid=3616981